ঢাকা
আজকের সর্বশেষ সবখবর

এমপি লিটনের বাড়ি ও গাড়িতে ঝুঁলছে তালা

admin
October 4, 2015 5:15 pm
Link Copied!

এম মতিয়ার রহমান, গাইবান্ধা প্রতিনিধিঃ  স্কুল ছাত্র শিশু সৌরভ গুলিবিদ্ধ হওয়ার পর থেকে পলাতক রয়েছেন গাইবান্ধা-১, সুন্দরগঞ্জ আসনের এমপি মঞ্জুরুল ইসলাম লিটন। এ কারণে এমপি’র বাড়ি এবং সরকারি গাড়িতে ঝুঁলছে তালা। ঘটনার পর শুক্রবার বেলা সাড়ে ১১টার পর থেকে এমপি’র দুইতলা বিশিষ্ট বাড়ির নিচতলার প্রধান ফটকে ঝুঁলছে তালা ।

সরেজমিন গিয়ে দেখা গেছে, এমপি’র বাড়ির দৃশ্যপট। খোঁজ নিয়ে জানা গেছে, ঘটনার পর এমপি তার পরিবারের লোকজনকে সাথে নিয়ে বাড়ি ছেড়ে অন্যত্র আত্মগোাপনে রয়েছে। এমপি ও তাঁর বিশেষ সহকারি খুরশিদ জাহান হক স্মৃতির সঙ্গে মোবাইল ফোনে চেষ্টা করেও তাদেরকে পাওয়া যায়নি। এ ঘটনায় শনিবার রাতে গুলিবিদ্ধ শিশু সৌরভের পিতা বাদি হয়ে এমপি মঞ্জুরুল ইসলাম লিটনকে আসামি করে থানায় মামলা করেছেন। শনিবার রাতেই এমপি’র লাইন্সেসকৃত শর্টগান ও একটি পিস্তুল ৫৩ রাউন্ড গুলিসহ সুন্দরগঞ্জ থানায় জমা দিয়েছেন এমপির শ্যালক তরিকুল ইসলাম।

আ’লীগ উপজেলা সাংগঠনিক সম্পাদক সাজেদুল ইসলাম বলেন-এমপি লিটন বাংলাদেশ আ’লীগের ভাবমুর্তি ক্ষুন্ন করেছে। জননেত্রী শেখ হাসিনার স্বপ্নের সোনার বাংলায় দাগ লাগিয়েছে। তাই এমপি হিসেবে তার ক্ষমতায় থাকার কোন অধিকার নেই। অবিলম্বে তাকে গ্রেফতার করে আইনের আওতায় নিয়ে আসতে হবে এবং গুলিবিদ্ধ শিশু সৌরভের মামলার সুষ্ঠু বিচার করতে হবে।

রবিবার সকালে এমপির গ্রেফতারের দাবিতে উপজেলা বঙ্গবন্ধু চত্বরে মানববন্ধন ও সমাবেশ করেছেন স্থানীয় নাগরিক কমিটি। মানববন্ধন কর্মসূচি চলাকালিন সময় আ’লীগ নেতা ও সুন্দরগঞ্জ পৌর মেয়র আব্দুল্লাহ আল মামুন বলেন-অবিলম্বে এমপি মঞ্জুুরুল ইসলাম লিটনের সংসদ সদস্য পদ বাতিল করে আইনের আওতায় নিয়ে এসে বিচার করতে হবে। এমনকি তাকে ২৪ ঘন্টার মধ্যে গ্রেফতার করতে হবে। তা না হলে সুন্দরগঞ্জে দুর্বার আন্দোলন গড়ে তোলা হবে। তিনি আরও বলেন-২টি লাইন্সেসকৃত অস্ত্র জমা দিলেও তার নিকট এবং তার বাহিনির নিকট আরও অনেক অস্ত্র রয়েছে।

উপজেলা আ’লীগের সাবেক সভাপতি টিআইএম মকবুল হোসেন প্রামাণিক বলেন- স্থানীয় সাংসদ আ’লীগকে ধ্বংস করার ষড়যন্ত্র করছে। এমপি হওয়ার পর থেকে লিটন একের পর এক ন্যাক্কার জনক কর্মকান্ড চালিয়ে যাচ্ছেন। পৃথিবীর ইতিহাসে নজিরবিহীন ঘটনা শিশু সৌরভকে গুলি করেছেন এমপির মত একজন সম্মানিয় ব্যক্তি, এর দৃষ্টান্তমুলক শাস্তির দাবি জানাই ।

আ’লীগ নেতা মাসুদুর রহমান চঞ্চল বলেন-গণতান্ত্রিক দেশে যে এমপির নিকট থেকে সাধারণ জনগণ নিরাপত্তার আশা করেন, আজ সেই এমপির হাতেই গুলিবিদ্ধ হচ্ছে নিষ্পাপ শিশু। অবিলম্বে এমপি মঞ্জরুল ইসলাম লিটনকে গ্রেফতার করে আইনের আওতায় নেয়ার জন্য প্রশাসনের সু-দৃষ্টি কামনা করছি। এদিকে এমপিকে গ্রেফতারের দাবিতে ফুঁসে উঠেছে এলাকার আপামোর জনসাধারণ। মামলা সংক্রান্ত বিষয়ে থানার অফিসার ইনচার্জ ইসরাইল হোসেন জানান-তদন্ত সাপেক্ষে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে। ব্যক্তি যত ক্ষমতাধরই হোক না কেন আইনের উর্দ্ধে কেউ নয়। মামলার বাদি গুলিবিদ্ধ শিশু সৌরভের পিতা সাজু মিয়া মামলার সুষ্ঠু বিচারের দাবি জানিয়ে উদ্ধর্তন কর্তৃপক্ষের হস্তক্ষেপ কামনা করেছেন। পাশাপাশি তার পরিবারের নিরাপত্তার বিষয়ে সংশ্লিষ্ট প্রশাসনের হস্তক্ষেপ কামনা করেছেন।

http://www.anandalokfoundation.com/