13yercelebration
ঢাকা
আজকের সর্বশেষ সবখবর

আগৈলঝাড়ায় ঘূর্ণিঝড়ে ক্ষয়-ক্ষতিতে দুর্গতদের পাশে প্রশাসন

Link Copied!

বরিশালের আগৈলঝাড়ায় ঘূর্ণিঝড় রেমালের তান্ডবে বিভিন্ন এলকায় কাচা ঘরবাড়ির ব্যাপক ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে। রেমালের প্রভাবে রবিবার দুপুর থেকেই থেমে থেমে বৃষ্টি শুরু হয়ে সোমবার গভীর রাত পর্যন্ত ঝড়ো বাতাসের সাথে মাঝারি ও ভারি বৃস্টিতে গাছপালা উপড়ে পরে, কাঁচা ঘরবাড়ি, পান বরজ, উঠতি সবজী ক্ষেত বিধ্বস্ত হয়েছে, নদী এলাকায় কিছু নীচুু মাছের ঘের তলিয়ে গেছে, সড়কের পাশে গাছপালা উপরে পরে আভ্যন্তরীণ যোগযোগ ব্যহত ছিল।

রবিবার সন্ধ্যা থেকে মঙ্গলবার দুপুর পর্যন্ত বিদ্যুৎ ব্যবস্থা বন্ধ ছিল। কোথাও বিদ্যুত না থাকায় ফোন কোম্পানীগুলোর নেটওয়ার্ক ড়িম্বনায় পরতে হয়েছে লাখ লাখ গ্রাহকদের।

সোমবার দুর্যোগের সন্ধ্যা থেকে রাত ১১টা পর্যন্ত উপজেলা চেয়ারম্যান বীর মুক্তিযোদ্ধা আব্দুর রইচ সেরনিয়াবাত উপজেলা সদর, সেরাল, পতিহার, মুড়িহার, গৈলা, নীমতলা, দাসেরহাট, রাজিহার, বাকাল, পয়সারহাট থেকে গৌরনদী সীমানা পর্যন্ত দুর্গত এলাকা ঘুরে দেখেন। এসময় তিনি দুর্গত লোকজনের খোঁজ খবর নেন এবং তাদের সার্বিক ভাল মন্দ দেখার আশ^স্ত করেন। এর আগে বৈরী আবহাওয়া উপেক্ষা করে চেয়ারম্যান আব্দুর রইচ সেরনিয়াবাত সেরাল গ্রামে গিয়ে মৃত খলিল সেরনিয়াবাতের জানাজায় অংশ গ্রহন করেন এবং স্থানীয় এমপি আলহাজ¦ আবুল হাসানাত আবদুল্লাহ’র পে থেকে ওই পরিবারকে সহায়তা প্রদান করেন।

সোমবার দুপুরে উপজেলা সদরে বিদ্যুৎ সরবরাহ করা হলেও প্রত্যন্ত এলাকা রয়েছে বিদ্যুৎবিহীন। সুগন্ধা নদীর পানি বেড়ে খালে প্রবেশ করে জমিতে পানি উঠে গেছে।

উপজেলা প্রকল্প বাস্তবায়ন অফিসা মো. মোশারফ হোসেন জানান-ঘূর্ণিঝড় শুরুর আগেই উপজেলা প্রশাসনের পক্ষ থেকে মাইকিং করায় লোকজন নিরাপদ আশ্রয়ে থাকায় জানমালের কোন ক্ষয়ক্ষতি হয়নি। ঘুর্ণিঝড় রেমালে বাগধা ইউনিয়নে ক্ষতিগ্রস্থ পরিবারের কাছে খাদ্য সামগ্রী হিসেবে সোমবার দুপুরে চাল, ডাল, তেল, আলু, লবন বিতরণ করা হয়েছে।

তিনি আরও জানান, উপজেলা পাঁচটি ইউনিয়নের চেয়ারম্যানদের মাধ্যমে এলাকায় রেমালের ক্ষয়ক্ষতির তালিকা নিরুপনের কাজ চলছে। মঙ্গলবার সকাল থেকে আকাশে মেঘ থাকলেও আবহাওয়া স্বাভাবিক রয়েছে।

http://www.anandalokfoundation.com/