13yercelebration
ঢাকা
আজকের সর্বশেষ সবখবর

বাংলাদেশকে কঠিন প্রতিদ্বন্দ্বী মানছে দ. আফ্রিকা

admin
January 22, 2016 1:39 pm
Link Copied!

ক্রীড়া ডেস্কঃ বাংলাদেশকে কঠিন প্রতিদ্বন্দ্বী মানলেও, শিরোপা ধরে রাখার প্রত্যয় নিয়ে যুব বিশ্বকাপের লড়াইয়ে নামবে বর্তমান চ্যাম্পিয়ন দক্ষিণ আফ্রিকা।

এদিকে, দশ বছর পর আবারো যুব বিশ্বকাপের শিরোপা পুনরুদ্ধার করতে চায় পাকিস্তানের তরুণ ক্রিকেটাররা। ২৭ জানুয়ারি টুর্নামেন্ট শুরুর আগে বৃহস্পতিবার আয়োজিত এক সংবাদ সম্মেলনে আসরকে ঘিরে নিজ নিজ প্রত্যাশার কথা তুলে ধরেন অংশগ্রহণকারী দলের অধিনায়করা।

বাকি ১৫টি দলকে ফেলে এবারো কি পারবেন ট্রফিটা নিজেদের করে নিতে ? অনূর্ধ্ব-১৯ বিশ্বকাপের ট্রফি হাতে হয়তো এমনটাই ভাবছিলেন অনূর্ধ্ব-১৯ প্রোটিয়া দলের অধিনায়ক টনি জি জর্জি। আসরে স্বাগতিক বাংলাদেশকে সমীহ করেই মাঠে নামবে বর্তমান চ্যাম্পিয়নরা। সেই সঙ্গে দলগতভাবে ভালো খেলে শিরোপা দখলে রাখার স্বপ্নের কথা জানান তারা।

দক্ষিণ আফ্রিকা অনূর্ধ্ব-১৯ দল অধিনায়ক টনি ডি জর্জি বলেন, ‘বাংলাদেশের অনূর্ধ্ব-১৯ দলটি বেশ ভালো খেলে। দু’দেশেই আমরা বেশ কয়েকটি সিরিজ খেলেছি, তাই তাদের সম্পর্কে আমাদের ধারণা আছে। সে অভিজ্ঞতাকে কাজে লাগিয়ে ভালো করার চেষ্টা করবো। ‌আর এবারও চ্যাম্পিয়ন হতে হলে দলের প্রত্যেকে অবশ্যই ভালো খেলতে হবে।’

২০০৪ সালে প্রথম এবং ২০০৬ সব শেষ যুব বিশ্বকাপের শিরোপা জিতেছিলো পাকিস্তানের যুবারা। দীর্ঘ দশ বছর পর আবারো তরুণ ক্রিকেটারদের শ্রেষ্ঠত্বের আসন জয়ের স্বপ্ন নিয়ে আসরে অংশ নিচ্ছে গওহর হাফিজের দল। যুব বিশ্বকাপে অংশ নেয়ার অল্প কিছুদিন আগে দুবাইতে অস্ট্রেলিয়া আর নিউজিল্যান্ডকে হারিয়ে বেশ আত্মবিশ্বাসী পাকিস্তানের তরুণ দলটি।

পাকিস্তান অনূর্ধ্ব-১৯ দল অধিনায়ক গওহর হাফিজ বলেন, ‘আমাদের অলরাউন্ডাররাই দলের মূল শক্তি। দুবাইয়ের বাজে কন্ডিশনে খেলে অস্ট্রেলিয়া আর নিউজিল্যান্ডকে হারিয়ে সিরিজ জিতেছি।সে তুলনায় বাংলাদেশের কন্ডিশন বেশ ভালো। তাই ভালো কিছু করার ব্যাপারে আমরা আশাবাদী।’

প্রতিবেশী দুই দেশ নেপাল আর বাংলাদেশ ক্রিকেটের শুরুটা কাছাকাছি সময়ে শুরু করলেও, বাংলাদেশ এগিয়ে গেছে বহু দূর। তাই ক্রিকেটে নেপালের অনুপ্রেরণা বাংলাদেশ। সংবাদ সম্মেলনে এমনটাই জানালেন নেপালি অধিনায়ক রাজু রিজাল। সপ্তম বারের মতো এ আসরে অংশ নিয়ে, প্রতিটি ম্যাচে উন্নতির ছাপ রাখতে চান নেপালের ক্রিকেটাররা।

বিশ্বসেরা অলরাউন্ডার সাকিব আল হাসানকে আমার খুব ভালো লাগে। আর লক্ষ্যের কথা যদি বলি, তাহলে অতীতের ভুল শুধরে সামনের ম্যাচগুলোতে ভালো খেলতে চাই, প্রতিটি ম্যাচেই নিজেদের অগ্রগতি দেখতে চাই।

এছাড়া সংবাদ সম্মেলনে- ফিজি, আয়ারল্যান্ড, নিউজিল্যান্ড ও ওয়েস্ট ইন্ডিজ দল নিজেদের প্রস্তুতি আর প্রত্যাশার কথা তুলে ধরেন।

http://www.anandalokfoundation.com/