13yercelebration
ঢাকা
আজকের সর্বশেষ সবখবর

এশিয়া কাপে সুপার ফোরে খেলতে চায় টাইগাররা

Link Copied!

শ্রীলংকা ও আফগানিস্তানের মত কঠিন চ্যালেঞ্জকে টপকে আসন্ন এশিয়া কাপের সুপার ফোর পর্বে যাওয়াই প্রথম লক্ষ্য বাংলাদেশ দলের। সর্বশেষ ২০১৮ আসরসহ  তিনবার এশিয়া কাপের ফাইনাল খেলেছে বাংলাদেশ। কিন্তু  আসন্ন আসরে গ্রুপ পর্বে শ্রীলংকা ও আফগানিস্তানের বিপক্ষে মুখোমুখি হবার আগে, এই দু’দলের বিপক্ষে অতীতের পরিসংখ্যান আছে টাইগারদের সামনে।

দু’দলের খেলোয়াড়রাই মাঠের ভেতর বাক-বিতান্ডায় জড়িয়ে পড়ায় ২০১৮ সালে নিদাহাস ট্রফিতে বাংলাদেশ এবং শ্রীলংকার ম্যাচটিতে ছিল  টান টান উত্তেজনা। কাকতালীয়ভাবে নিদাহাস ট্রফির ঐ ম্যাচে বাংলাদেশ যখন স্বাগতিকদের মুখোমুখি হয়েছিলো তখন শ্রীলংকার কোচ ছিলেন হাথুরুসিংহে। এই ম্যাচে নাটকীয়ভাবে শ্রীলংকাকে হারিয়ে ফাইনালে উঠেছিলো বাংলাদেশ। কিন্তু ঐ হার মেনে নেয়া শ্রীলংকার জন্য কঠিনই ছিলো।  বাংলাদেশের খেলোয়াড়দের উচ্ছাসের মাত্রা এতটাই ছিলো, যা শ্রীলংকার তৎকালীন কোচ হাথুরুসিংহে পছন্দ করেননি।

বিষয়গুলো সামনে এলে  পাঁচ বছর আগে শ্রীলংকার মাটিতে হওয়া অতীতের তিক্ত অভিজ্ঞতাকে পেছনে রেখে এশিয়া কাপে ভালো ফলাফল করতে মুখিয়ে আছেন অধিনায়ক সাকিব আল হাসান এবং প্রধান কোচ চন্ডিকা হাথুরুসিংহে। এদিকে,  আরেক দল আফগানিস্তান মাত্র দুই মাস আগে  ঘরের মাঠে  তিন ম্যাচের ওয়ানডে সিরিজে বাংলাদেশকে হারিয়েছিলো। তবে এ দুই প্রতিপক্ষের বিপক্ষে  গ্রুপ পর্বে  বাংলাদেশ  পুরোপুরি  প্রস্তুত হয়েই মাঠে নামবে আশা  করা হচ্ছে।

অতীতের বিষয়টি মাথায় রেখে এবার এই দু’টি ম্যাচ জিতে সুপার ফোর নিশ্চিত করতে চান সাকিব। আজ তিনি বলেন, ‘আমি প্রতিন্দ্বন্দিতা শব্দটি খুব বেশি পছন্দ করি না। আমরা সবসময় প্রতিযোগিতামূলক খেলা খেলেছি  যা দর্শক্য এবং ক্রিকেটের জন্য ভালো। খেলোয়াড়রা এমন কোন প্রতিন্দ্বন্দিতা অনুভব করে না। খেলোয়াড়দের জন্য গুরুত্বপূর্ণ বিষয় হল, দেশের জন্য ম্যাচ জয়।’

একই সুরে কথা বলেছেন হাথুরুসিংহে। তিনি বলেন, ‘আমি প্রতিন্দ্বন্দিদের নিয়ে বিচলিত  নই। তারপরও, সম্প্রতি এই দু’টি দল একে অপরের বিপক্ষে সত্যিই ভাল খেলেছে, বিশেষ করে গত এশিয়া কাপে।’ তিনি আরও বলেন, ‘আমি মনে করি, দুই দলই আমাদের ভালো চ্যালেঞ্জ ছুড়ে  দেবে। তবে একই সাথে, আমি মনে করি অতীতে তাদের বিপক্ষে আমরা সাফল্য পেয়েছি। এজন্য আমরা প্রতিন্দ্বন্দিতা হিসেবে ধরছি না। কিন্তু দু’দলের বিপক্ষেই আমাদের কৌশল থাকবে কিভাবে আমরা সুবিধা পেতে পারি।’ এটি এমন ফরম্যাট, যেখানে জয়ও সুপার ফোর পর্বের নিশ্চিয়তা দেয় না। এজন্য একটি জয়েই নির্ভার হতে চান না সাকিব ও হাথুরুসিংহে।

হাথুরু বলেন, ‘প্রথমে আমাদের লক্ষ্য, দ্বিতীয় রাউন্ডের জন্য যোগ্যতা অর্জন করা। আপনি যেমন বলেছেন, আমরা শ্রীলংকার বিপক্ষে শ্রীলংকায় খেলেছি, নিজেদের কন্ডিশনে খুব ভালো দল তারা। তারপর আমরা পাকিস্তানে খেলছি  এবং জিতেছি। সম্প্রতি আমাদের মাঠে  আফগানিস্তান সিরিজ জিতেছে। তাই বড় চ্যালেঞ্জ আছে, কিন্তু আমরা সেই চ্যালেঞ্জের জন্য প্রস্তুত।’ সাকিব বলেন, ‘এই মুহূর্তে শুধুমাত্র এশিয়া কাপকে নিয়েই আমাদের পরিকল্পনা এবং প্রস্তুতি। যদি আমি ছোট করে বলি, একমাত্র লক্ষ্য হলো, শ্রীলংকা ও আফগানিস্তানকে হারিয়ে সুপার ফোর নিশ্চিত করা।’

http://www.anandalokfoundation.com/