13yercelebration
ঢাকা
আজকের সর্বশেষ সবখবর

শ্রীশ্রীদুর্গাদেবীর অসুর বধের দিন মহানবমী তিথি আজ

admin
October 18, 2018 9:18 am
Link Copied!

প্রসেনজিৎ ঠাকুরঃ  আমাদের সমস্ত তিথি-নক্ষত্র হিসাব করা হয় চন্দ্রের অবস্থান দেখে। সেই অনুযায়ী মাসের তিরিশ দিনকে শুক্ল ও কৃষ্ণ এই দুই ভাগে ভাগ করা হয়েছে। মহানবমী এই শুক্লা নবমী যাকে শাস্ত্রে বলে ‘উগ্রপদা’।

নবমী তিথিতে মানুষের নাকি উত্তেজনা বাড়ে অর্থাৎ মানুষের মধ্যে অপরাধের প্রবণতা বাড়ে, অশুভত্বের দিকে মানুষ নবমীতে বেশী ঝুঁকে যায়। কিন্তু, এই অশুভত্বকে বিনাশ করে শুভশক্তির জয়ের জন্য আমরা সেই দেবী দুর্গারই শরণ নেই। তাই এই মহানবমী তিথিকেই অন্য নবমী তিথির মধ্যে শুভ ধরা হয়। জপ, তপ, উপাসনা এইসব তাই এই তিথিতে বেশি করে করতে বলা হয়।

নবমীর সকাল মানে অশুভ শক্তি থেকে মুক্তি। শারদীয় দুর্গা উৎসবের নবমীর এই দিনটিতে দেবী দুর্গা অসুরকে বধ করেছিলেন। এমনিতে তো দুর্গা পূজা বিধি খুবই জটিল। কিন্তু, তার খানিকটা এখানে বলা হল। নবমী তিথি শুরুই হয় সন্ধিপুজো দিয়ে।

আমরা সবাই জানি যে সন্ধিপুজো হয় অষ্টমী তিথির শেষ ২৪ মিনিট ও নবমীর সূচনার প্রথম ২৪ মিনিট জুড়ে। মূলত দেবী চামুন্ডার পূজা হয় এই সময়ে। একশো আটটি মাটির প্রদীপ জ্বালিয়ে ও একশো আটটি পদ্মফুল নিবেদন করা হয় দেবীর চরণে। নিবেদন করা হয় রান্না করা ও কাঁচা সবজি, ফল ইত্যাদিও। অষ্টমীতেই মূলত অঞ্জলি দেওয়া হয়, সেটাই প্রশস্ত। কিন্তু, নবমীতেও অঞ্জলি দেওয়া হয়ে থাকে। আসলে অষ্টমী এই ক’দিনের তুঙ্গ মূহুর্ত বলেই এই দিনে সাধারণত দেওয়া হয় অঞ্জলি।

নবমীর অঞ্জলির আলাদা কোনো নিয়ম নেই, তা অষ্টমীরই মতো। তিনবার পুষ্পাঞ্জলি দিয়ে প্রণাম করতে হয়, ‘ওঁ সর্বমঙ্গল মঙ্গল্যে শিবে সর্বার্থসাধিকে শরণ্যে ত্রম্ব্যকে গৌরী নারায়ণী নমস্তুতে’ ইত্যাদি মন্ত্রে। নবমীর বিশেষত্ব যদি কিছু থাকে তা হল এই হোম-যজ্ঞ অনুষ্ঠানের মধ্যে। নবমীতেই মূলত হোম হয়ে থাকে, ব্যতিক্রমী নিয়মও থাকতে পারে।

মূলত আঠাশটা বা একশো আটটা নিখুঁত বেলপাতা লাগে। বালি দিয়ে যজ্ঞের মঞ্চ বানিয়ে বেলকাঠ ঠিকভাবে নিয়মমতো সাজিয়ে পাটকাঠি দিয়ে আগুন ধরিয়ে ঘি’তে চুবিয়ে বেলপাতাগুলো নিবেদন করা হয়। তারপর সবার শেষে একটি কলা চেলীতে বেধে পান নিয়ে সেটা ঘি’তে চুবিয়ে পূর্ণাহুতি দেওয়া হয়। তারপর তার মধ্যে দই দেওয়া হয় ও দুধ দিয়ে আগুন নেভানো হয়।

http://www.anandalokfoundation.com/