ঢাকা
আজকের সর্বশেষ সবখবর

নরেন্দ্র মোদীর যাবতীয় সিদ্ধান্তের মূলে থাকে বিজ্ঞান -মধ্যপ্রদেশের মুখ্যমন্ত্রী

Link Copied!

ভোপালে অনুষ্ঠিত অষ্টম আন্তর্জাতিক বিজ্ঞান উৎসবের আসরে, বিশিষ্ট বিজেপি নেতা ও মধ্যপ্রদেশের মুখ্যমন্ত্রী শিবরাজ সিংহ চৌহান অন্যতম প্রধান অতিথি হিসেবে ভাষণে বলেন, “আদিকাল থেকেই ভারত বিজ্ঞানমনস্ক ছিল। এ ক্ষেত্রে তার যুক্তি, রাইট ব্রাদার্স ১৯১৯ সালে আধুনিক বিমান তৈরি করার অন্তত ৭,০০০ বছর আগেই রামায়ণে পুষ্পক রথের উল্লেখ পাওয়া যায়।” শিবরাজের সিংহের এই মন্তব্য নিয়ে বিতর্ক শুরু হয় যে, বিজ্ঞান উৎসবের মঞ্চে তিনি পৌরাণিক আখ্যানকে বিজ্ঞান বলে দাবি করার চেষ্টা করছেন?
শিবরাজ সিংহ জানান, পশ্চিমি দেশগুলি ভারতের অনেক পরে বিজ্ঞানের সংস্পর্শে এসেছে। তাই পশ্চিমের উন্নত দেশগুলি ভারতকে বিজ্ঞানের শিক্ষা দিয়েছে, এমন ধারণা থেকে সকলকে বেরিয়ে আসার অনুরোধ জানান তিনি। ভারত বিজ্ঞানে এগিয়ে থাকলেও যোগ্য নেতৃত্বের অভাবে তা প্রতিফলিত হয়নি বলে জানিয়েছেন তিনি। নরেন্দ্র মোদীর প্রশংসা করে তিনি বলেন, “যোগ্য নেতার নেত়ৃত্বেই ভারত কোভিডের মতো অতিমারিকে রুখতে পেরেছে।” বিজ্ঞানচর্চায় ভারতের প্রাচীনত্বের কথা বলতে গিয়ে এই বিজেপি নেতা মহর্ষি কণাদের ‘পরমাণুবাদ’, ভাস্করাচার্যের জ্যোতির্বিদ্যা সংক্রান্ত তত্ত্বের কথা উল্লেখ করেন।
শিবরাজ সিংহের ভাষায়, “জন ডালটন পরমাণু তত্ত্ব আবিষ্কার করার ২,০০০ বছর আগেই মহর্ষি কণাদ তার পরমাণু তত্ত্বকে হাজির করেছিলেন।” শিবরাজ সিংহ জানান, চিকিৎসাবিদ্যার দুই কেন্দ্র ছিল বারাণসী এবং তক্ষশীলা। কৌতূহল ছাড়া বিজ্ঞানের সাধনা হয় না। কৌতূহলই মানুষকে বিজ্ঞানমনস্ক করে তোলে। প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর যাবতীয় সিদ্ধান্তের মূলে থাকে বিজ্ঞান।
অনুষ্ঠানে উপস্থিত প্রতিনিধিদের আশ্বস্ত করে শিবরাজ সিংহ বলেন, “ভারতের উজ্জ্বল অতীত নরেন্দ্র মোদীর নেতৃত্বে আবার ফিরছে। আপনারা মন দিয়ে বিজ্ঞানচর্চা চালিয়ে যান।”
http://www.anandalokfoundation.com/