শুক্রবার, ২৯ মে ২০২০, ১০:৪৩ অপরাহ্ন

সর্বশেষ খবর :
মেহেরপুরে বাড়ি বাড়ি গিয়ে খাদ্য সামগ্রী পৌঁছিয়ে দিচ্ছেন পৌর মেয়র রিটন ঝিনাইদহ হরিণাকুন্ডুতে দু’পক্ষের সংঘর্ষে নারীসহ ১৫ জন আহত প্রধানমন্ত্রীর বিশেষ সহায়তা ২৫’শ টাকার নামের তালিকা ওয়ার্ডে ওয়ার্ডে টাঙ্গালেন চেয়ারম্যান রনি লস্কর উলিপুরে আরো ৩ জন নিয়ে মোট করোনা রোগী শনাক্ত ৮ ও সুস্থ ১ জন ঠাকুরগাঁওয়ের দুই শিক্ষার্থীর লাশ উদ্ধার ঠাকুরগাঁওয়ে প্রথম করোনা উপসর্গ নিয়ে একজনের মৃত্যু মৎস্য ও প্রাণিসম্পদ খাতের উন্নয়নে বাংলাদেশকে সহায়তা দিতে আগ্রহী মিশর করোনার ভয় আর আতঙ্ক নিয়েই ১ জুন খুলছে উপাসনালয় এবং ৮ জুন থেকে পশ্চিমবঙ্গের সব অফিস চীন ভারত যুদ্ধে, ভারতের পক্ষে দাঁড়ানোর ইঙ্গিত রাশিয়ার করোনাভাইরাসে শত বছর আগের মহামন্দার পরিস্থিতি ফিরিয়ে আনতে পারে -জাতিসংঘ মহাসচিব

করোনা বিশ্বজুড়ে কিভাবে ছড়াচ্ছে, গবেষণায় দুই বাঙ্গালী বিজ্ঞানীর চাঞ্চল্যকর তথ্য

করোনাভাইরাস কিভাবে বিশ্বজুড়ে

করোনাভাইরাস কিভাবে বিশ্বজুড়ে মহামারি আকার ধারণ করেছে সেই গবেষণায় ব্যস্ত রয়েছেন বাঙালি দুই বিজ্ঞানি। ভারতের ‘ন্যাশনাল ইন্সটিটিউট অব বায়োমেডিক্যাল জিনোমিক্স’ এর দুই বাঙালি হলেন বিজ্ঞানী নিধানকুমার বিশ্বাস ও পার্থপ্রতিম মজুমদার। ইতোমধ্যে তারা করোনাভাইরাসের এখন পর্যন্ত ১১টি ধরন সম্পর্কে জানতে পেরেছেন। তারা আরো জানতে পেরেছেন, এই ১১টি ধরনের মধ্যে কোনটি সবচেয়ে বেশি সংক্রমিত হয়।

সোমবার ‘ইন্ডিয়ান জার্নাল অব মেডিক্যাল রিসার্চ’ এ এই দুই বিজ্ঞানীর এ বিষয়ে একটি গবেষণাপত্র প্রকাশিত হয়েছে বলে প্রতিবেদন প্রকাশ করেছে আনন্দবাজার পত্রিকা। প্রাণঘাতী অদৃশ্য শত্রু করোনাভাইরাসের প্রতিষেধক আবিষ্কারে আদা জল খেয়ে নেমেছেন বিজ্ঞানীরা। এরইমধ্যে বিশ্বজুড়ে ভাইরাসটির শিকারে পরিণত হয়েছে ৩০ লাখেরও বেশি মানুষ। মারা গেছে দুই লাখের বেশি।

বিজ্ঞানীরা জানিয়েছেন, ভাইরাসটির প্রতিষেধক আবিষ্কারের আগে এর চরিত্র, বৈশিষ্ট নখদর্পণে নিতে হবে। সেই ভাবনা থেকেই তারা গবেষণায় নেমে পড়েন এবং অনেকটা সফল হন। ওই প্রতিবেদনে উল্লেখ করা হয়, ২০১৯ সালের ডিসেম্বর থেকে ২০২০ সালের ৬ এপ্রিল পর্যন্ত ৫৫টি দেশের ৩ হাজার ৬৩৬ জন করোনা-রোগীর দেহ থেকে ভাইরাস-নমুনা সংগ্রহ করে তাদের আরএনএ সিকোয়েন্স নিয়ে গবেষণা করেছেন বিজ্ঞানী নিধান ও পার্থপ্রতিম। প্রায় ৪ হাজার নমুনায় ১১ ধরনের করোনাভাইরাসের সন্ধান পান তারা। এই ১১ ধরন কোন কোন দেশে সংক্রমিত হয়েছে তার তালিকাও তৈরি করেছেন তারা।

এ বিষয়ে তরুণ বিজ্ঞানী পার্থপ্রতিম গবেষণাপত্রে উল্লেখ করেছেন, ডিসেম্বরে চীনের উহান শহর থেকে বিশ্বব্যাপী ছড়িয়ে পড়ার সঙ্গে সঙ্গে ব্যাপকভাবে মিউটেশন বা পরিবর্তন ঘটেছে ভাইরাসটির গঠনে। একেক দেশে একেক চেহারায় সংক্রমণ চালিয়ে যাচ্ছে ভাইরাসটি। এখন পর্যন্ত ‘ও’, ‘এ২’, ‘এ২এ’, ‘এথ্রি’, ‘বি’, ‘বি১’ সহ মোট ১১ ধরনের ভাইরাস মিলেছে। এর মধ্যে উহানে প্রথম সংক্রমণ ঘটায় ‘ও’। বাকি ১০টি সময় ও পরিবেশের সঙ্গে সঙ্গে থেকে পরিবর্তিত হয়েছে ‘ও’ টাইপ থেকে।

পার্থপ্রতিম বলেন, এদের মধ্যে ‘এ২এ’ টাইপটির সংক্রমণ ক্ষমতা এখন সবচেয়ে বেশি। এই ভাইরাসে মারাও পড়ছে বেশি মানুষ। ইউরোপ-আমেরিকা থেকে প্রাপ্ত নমুনায় সবচেয়ে ‘এ২এ’ করোনাভাইরাসকে পাওয়া গেছে। ২৪ জানুয়ারিতে নিজেকে বদলে ‘এ২এ’ টাইপ ধারণ করে করোনাভাইরাস। এরপর মার্চ মাস পর্যন্ত সময়ে বিশ্বের ৬০ শতাংশ দেশে সংক্রমণ ছড়ায় এটি। ইতালি ও যুক্তরাজ্যফেরত আক্রান্ত নাগরিকদের থেকে ভারতেও ‘এ২এ’ টাইপ এর বিস্তার ঘটিয়েছে।

বিজ্ঞানী নিধানকুমার জানান, ভারতসহ দক্ষিণ এশিয়ায় ‘এ২এ’ ছাড়াও চীন থেকে আসা ‘ও’ টাইপ এবং ইরান থেকে ‘এথ্রি’ বিস্তার লাভ করেছে। ভাইরাসটি এই চার মাসে নিজের এতোই পরিবর্তন এনেছে যে, এর প্রতিষেধক তৈরি বেশ চ্যালেঞ্জিং হয়ে উঠেছে।

শেয়ার করুন..

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

দি নিউজ এর বিশেষ প্রকাশনা

পুরাতন সংবাদ পডুন

SatSunMonTueWedThuFri
   1234
       
282930    
       
      1
       
     12
       
2930     
       
    123
25262728   
       
      1
9101112131415
30      
  12345
6789101112
272829    
       
   1234
2627282930  
       
1234567
891011121314
22232425262728
293031    
       
© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০১৪-২০২০ || এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা বা ছবি অনুমতি ছাড়া নকল করা বা অন্য কোথাও প্রকাশ করা সম্পূর্ণ বেআইনি
IT & Technical Support: BiswaJit
error: Content is protected !!