২১শে মে, ২০১৮ ইং | ৭ই জ্যৈষ্ঠ, ১৪২৫ বঙ্গাব্দ | বিকাল ৫:০৫
সর্বশেষ খবর

পহেলা বৈশাখের মঙ্গল শোভাযাত্রার প্রস্তুতি চলছে চারুকলায়

বিশেষ প্রতিবেদকঃ শেষ হতে চলেছে চৈত্র। আর মাত্র কয়েকটা দিনের অপেক্ষা। আসছে বৈশাখ। বাজছে নতুন বঙ্গাব্দের আগমনী বার্তা। নতুন বছরকে বরণ করে নিতে দেশজুড়ে চলছে নানামুখী আয়োজন। বর্ষবরণের সব আয়োজনের মধ্যে অন্যতম মঙ্গল শোভাযাত্রা। আর এ মঙ্গল শোভাযাত্রা-১৪২৫ আয়োজনে ব্যস্ত সময় কাটাচ্ছে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় চারুকলা অনুষদ।

বাঙালির প্রাণের উৎসব বাংলা নববর্ষকে বরণ করতে সচল হয়েছে শিল্পীদের হাতের ছোঁয়া ও রংতুলির আঁচড়। চারুকলায় ছড়িয়ে পড়েছে প্রাণে দোলা দেওয়া ঢাক-ঢোলের মুখর শব্দধ্বনি। আর এসব কিছুর মধ্যে প্রকাশিত হচ্ছে কল্যাণের বারতা দেওয়া মঙ্গল শোভাযাত্রার প্রস্তুতি। এবারও চারুকলা অনুষদের চারু শিক্ষার্থী ও শিক্ষক শিল্পীদের নিবিড় প্রয়াসে বের হবে এই শোভাযাত্রা। এ বছর মঙ্গল শোভাযাত্রার প্রস্তুতিতে নেতৃত্ব দিচ্ছে চারুকলা অনুষদের ২০তম ব্যাচের শিক্ষার্থীরা।

মঙ্গল শোভাযাত্রার খরচ তুলতে চলছে অর্থ সংগ্রহের কাজ। বৃহস্পতিবার দুপুরে চারুকলা অনুষদে প্রবেশ করতেই চোখে পড়ে ছবি আঁকাআঁকির দৃশ্য। শোভাযাত্রার ব্যয় মেটাতে চারু শিক্ষার্থীরা ব্যস্ত চিত্রকর্ম সৃজনে। প্রতিবছরের মতো এবারও মঙ্গল শোভাযাত্রার খরচ শিক্ষার্থী ও শিক্ষকরা নিজেদের শিল্পকর্ম বিক্রি করে সংগ্রহ করবেন।

কথা হয় মঙ্গল শোভাযাত্রা আয়োজন কমিটির আহ্বায়ক ও চারুকলা অনুষদের ডিন অধ্যাপক নিসার হোসেন সঙ্গে। তিনি এনটিভি অনলাইনকে বলেন, “সকল ভেদাভেদ ভুলে অশুভকে দূর করে আলোকিত বাংলাদেশ গড়তে সবাই মঙ্গল শোভাযাত্রায় অংশগ্রহণ করবে। যত দিন যাচ্ছে, আয়োজনটি তত বড় হচ্ছে। এবারের শোভাযাত্রার মূল প্রতীক হিসেবে বেছে নেওয়া হয়েছে সূর্য। অন্যান্য বছর রবীন্দ্রনাথ ঠাকুরের বা মানিক বন্দ্যোপাধ্যায়ের বাণীকে প্রতিপাদ্য হিসেবে বেছে নেওয়া হলেও এবারে লালনের গানের লাইন ‘মানুষ ভজলে সোনার মানুষ হবি’ বেছে নেওয়া হয়েছে। সোনার মানুষ না হলে সোনার বাংলা গড়া সম্ভব নয়। তাই মানুষকে প্রকৃত মানুষ হওয়ার আহ্বান জানানো হয়েছে এবারের প্রতিপাদ্যে।”

অশুভকে হটিয়ে ঐক্য ও অসাম্প্রদায়িকতার বাণী নিয়ে সুন্দর লাল-সবুজের বাংলাদেশ গড়ার সেই প্রত্যাশায় এবারের মঙ্গল শোভাযাত্রার মূল আকর্ষণ থাকছে সূর্য। লালন সাঁইজির গানের বাণী ‘মানুষ ভজলে সোনার মানুষ হবি’ প্রতিপাদ্যে এবারের নববর্ষে একটি সুন্দর, সুখী ও হানাহানিমুক্ত সমাজ ও রাষ্ট্র গঠনের আহ্বান জানাচ্ছে মঙ্গল শোভাযাত্রার সঙ্গে সংশ্লিষ্টরা।

শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*