বৃহস্পতিবার, ২১ ফেব্রুয়ারী ২০১৯, ০৩:৩৭ অপরাহ্ন

সেঞ্চুরির হাফসেঞ্চুরি, কিং কোহলির মুকুটে নতুন পালক

স্পোর্টস ডেস্ক: ২০০৮ সালে অভিষেক। মাত্র ৯ বছরের কেরিয়ারে ৫০টা শতরানের মালিক। যার মধ্যে ৪টে ডাবল সেঞ্চুরি! যে কোনও ক্রিকেটারের কাছে হিংসে করার মতো পরিসংখ্যান। সেটাই এখন বিরাটের দখলে। ইডেন গার্ডেন্সে শ্রীলঙ্কার বিরুদ্ধে প্রথম টেস্টের পঞ্চম দিনে টেস্টে ১৮তম সেঞ্চুরি করে ফেললেন। তার সঙ্গেই আন্তর্জাতিক কেরিয়ারে ৫০টি সেঞ্চুরিও করা হয়ে গেল তাঁর।

প্রথম পরিচ্ছদ পড়ে যদি কেউ ভাবেন এটা সত্যি তা হলে বলতে হয় এটা অর্ধ্বসত্য। কেরিয়ারের শুরু থেকেই এ ভাবে তাঁর ব্যাট থেকে বলে বলে সেঞ্চুরি বেরিয়ে আসেনি। ২০০৯ সালে এক দিনের ক্রিকেটে প্রথম শতরান আসে। ২০১০-এ করেন তিনটি শতরান। পরের বছর টেস্টেও অভিষেক হয় তাঁর। এর পর থেকেই লাগাতার অনেক পরিণত ক্রিকেট খেলছেন বিরাট। টেস্ট এবং এক দিনের ক্রিকেটে একের পর এক রেকর্ড হেলায় ভেঙেছেন এই ক’ বছরে।
দেখুন পুরো স্কোরবোর্ড

২০১২ থেকে তাঁর কেরিয়ার একেবারে পঞ্চম গিয়ারে গিয়ে ঠেকে। গত ৫ বছরেই টেস্ট এবং একদিনের ক্রিকেট (টেস্টে ১৭টি এবং একদিনের ক্রিকেটে ২৪টি) মিলিয়ে ৪১টি সেঞ্চুরি করেছেন তিনি! বছরে গড়ে ৮টা করে শতরান করা যে কত কঠিন তা যাঁরা ক্লাব স্তরেও খেলেছেন, তাঁরা ভালোই জানবেন। এই কঠিন কাজই এখন তাঁর কব্জির মোচড়ে ঘটছে অহরহ। অবসর নেওয়ার সময় সচিন তেন্ডুলকর ভবিষদ্বাণী করেছিলেন, তাঁর রেকর্ড ভাঙার ক্ষমতা রয়েছে বিরাট কোহলি অথবা রোহিত শর্মার। জহুরি হিরে চিনতে ভুল করেননি। রোহিত পিছিয়ে থাকলেও বিরাট একেবারে সঠিক পথেই এগোচ্ছেন। ক্রিকেট বিশেষজ্ঞদের মতে, এই ফর্মে থাকলে আগামী ৫ বছরের মধ্যে রান এবং শতরানের এক নতুন রেকর্ড থাকবে কিং কোহলি-র পকেটেই।

শেয়ার করুন..

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.

দি নিউজ এর বিশেষ প্রকাশনা

একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচন

© All rights reserved © 2019  
IT & Technical Support: BiswaJit