১৩ই ডিসেম্বর, ২০১৭ ইং | ২৯শে অগ্রহায়ণ, ১৪২৪ বঙ্গাব্দ | রাত ৮:৪০

ট্রাম্পের ‘ধর্ষণ’ নিয়ে মুখ খুললেন প্রথম স্ত্রী

আন্তর্জাতিক ডেস্কঃ হিসাব অনুযায়ী, মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের প্রথম স্ত্রী ইভানা ট্রাম্প। ১৫ বছর একই ছাদের নিচে জীবন কাটিয়েছেন তাঁরা।’ ১৯৯২ সালে বিচ্ছেদ হয় তাঁদের। বিচ্ছেদের আগের বছর ইভানা অভিযোগ করেন, তিন বছর আগে তিনি ট্রাম্পের হাতে ধর্ষণের শিকার হয়েছিলেন।

সম্প্রতি টাইম ম্যাগাজিনকে দেওয়া এক সাক্ষাৎকারে ইভানাকে ওই অভিযোগের বিষয়ে প্রশ্ন করা হয়। জবাবে ইভানা বিষয়টি এড়িয়ে যান। তিনি জানান, ধর্ষণের অভিযোগটি তিনি অপরাধের দৃষ্টিভঙ্গিতে করেননি।

ইভানা তাঁর সাক্ষাৎকারে ট্রাম্পকে বেশ ইতিবাচকভাবেই তুলে ধরেন। তিনি জানান, ট্রাম্পের সঙ্গে তাঁর প্রথম দেখা হয়েছিল একটি রেস্তোরাঁয়। দেখা শেষে সম্পূর্ণ বিল পরিশোধ করেন ট্রাম্প। ‘আমি তাঁর মতো কোনো পুরুষকে দেখিনি, যিনি কোনো বিনিময় আশা না করেই খরচ করেন’, বলেন ইভানা।

ইভানা আরো বলেন, প্রথম দেখার পর তাঁকে বিয়ে করার জন্য জোরাজুরি করতে থাকেন ট্রাম্প। ইভানাকে এক প্রকার হুমকি দিয়েই বলেন, ‘আমাকে বিয়ে না করলে তোমার নিজের জীবন তুমি নিজেই নষ্ট করবে।’

আলাদা একটা সাক্ষাৎকারে ইভানা বলেন, ‘আমি সাধারণত ট্রাম্পকে তেমন ফোন করি না। কারণ, হোয়াইট হাউসে মেলানিয়া থাকে। আমার ওপর কেউ হিংসা করুক, তা আমি চাই না। কারণ আমিই ট্রাম্পের প্রথম স্ত্রী। আমিই ফার্স্ট লেডি।’

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*