রবিবার, ১৯ জানুয়ারী ২০২০, ০৭:৩৬ পূর্বাহ্ন

সর্বশেষ খবর :
মেহেরপুরের ভাষা সৈনিক নজির হোসেন বিশ্বাস আর বেঁচে নেই মেহেরপুরের বুড়িপোতা সীমান্ত ফাঁড়ির থেকে ১৫০ বোতল ফেন্সিডিল উদ্ধার নবীগঞ্জ কেলিকানাইপুরে বার্ষিক লীলা সংকীর্তন মহোৎসব সম্পন্ন বুথ দখল করে ইলেকট্রনিক ভোটিং মেশিন(ইভিএম) এ জাল ভোট চতুর্থ শিল্প বিপ্লবে জ্ঞানভিত্তিক সব কিছুই পরিবর্তন আসবে প্রযুক্তির মাধ্যমে -অর্থমন্ত্রী ধর্ম নিয়ে রাজনীতি করেছে জিয়া, এরশাদ ও খালেদা জিয়ারা -নৌপরিবহন প্রতিমন্ত্রী যাদের মা-বাপের ঠিক নেই তারাই কেন্দ্রীয় আইনের বিরোধিতা করছে -অশ্লীল আক্রমনে দিলীপ ভোলায় নিষেধাজ্ঞা অমান্য করে চলছে জাটকা নিধনের মহোৎসব ভোলার চরফ্যাসনে ভয়াবহ অগ্নিকান্ডে ২২ দোকান ভস্মিভূত দুদিন পিছিয়ে পহেলা ফেব্রুয়ারি ঢাকা সিটি নির্বাচন

স্ত্রীকে হাত-পা বেঁধে তার সামনেই উত্তম চন্দ্র দেবনাথকে জবাই করে হত্যা

উত্তম চন্দ্র দেবনাথ

জগদীশ দাস, স্টাফ রিপোর্টারঃ স্ত্রী ললিতা রানিকে হাত-পা বেঁধে তার সামনেই উত্তম চন্দ্র দেবনাথকে (২৮) জবাই করে হত্যা করা হয়েছে গাইবান্ধার সুন্দরগঞ্জে।

গতকাল সন্ধ্যা সাড়ে ৬টার দিকে গাইবান্ধার সুন্দরগঞ্জ উপজেলার তাঁতিপাড়ায় নিজ ঘরে স্ত্রীকে বেঁধে রেখে স্বামীকে জবাই করে হত্যার খবর পাওয়া গেছে।

উত্তম দেবনাথ সুন্দরগঞ্জ পৌরসভার ৬ নম্বর ওয়ার্ডের তাঁতিপাড়া এলাকার বাসিন্দা। তিনি ওই এলাকার নিবারণ চন্দ্র দেবনাথের ছেলে এবং পেশায় রাজমিস্ত্রীর কাজ করতেন। ঘটনার বিস্তারিত বিবরণে জানা যায়, কয়েকজন দুর্বৃত্ত উত্তনের বাড়িতে প্রবেশ করে তার স্ত্রী ললিতা রানীর হাত-পা বেঁধে ফেলে। তারপর তার সামনেই তার স্বামীকে জবাই করে হত্যার পর ঘরে তালা দিয়ে পালিয়ে যায়।

স্থানীয়রা জানান, মঙ্গলবার সন্ধ্যায় নিজ ঘরে স্ত্রীকে হাত-পা বেঁধে উত্তমকে জবাই করে হত্যা করে পালিয়ে যায় দুর্বৃত্তরা। পরে ঘরের বেড়া ভেঙ্গে অচেতন অবস্থায় উত্তমের স্ত্রীকে উদ্ধার করে স্থানীয় হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। প্রতিবেশীরা গিয়ে ঘটনাটি দেখে থানায় খবর দেয়। পুলিশ গিয়ে উত্তমের লাশ থানায় নিয়ে আসে।

ময়নাতদন্তের জন্য তা গাইবান্ধা জেলা হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে।

নিহতের পরিবার সহ প্রতিবেশিরা এই ঘটনায় বাকরুদ্ধ, তারা বলেন কি ভাষায় ক্ষোভ প্রকাশ করবো বুঝতে পারছিনা। মানুষ এত বর্বর হয় কি করে! চরম পাশবিক এই ঘটনার সাথে জড়িতদের অতিদ্রুত আইনের আওতায় এনে দ্রুত বিচারের মাধ্যমে দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি হিসেবে ফাঁসির দাবি জানাচ্ছি।

শেয়ার করুন..

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.

দি নিউজ এর বিশেষ প্রকাশনা

একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচন

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০১৯ এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা বা ছবি অনুমতি ছাড়া নকল করা বা অন্য কোথাও প্রকাশ করা সম্পূর্ণ বেআইনি
IT & Technical Support: BiswaJit